Class 9 Geography Model Activity Task Part 7 Solution

Class 9 Geography Model Activity Task Part 7 Solution

Class 9 Geography Model Activity Task Part 7 Solution. Class 9 Model Activity Task Question & Answer October, 2021 part 7 Bengali Version Solution for WBBSE Students.

Class 9 Geography Model Activity Task Part 7 Questions:

মডেল অ্যাক্টিভিটি টাস্ক

নবম শ্রেণি

পরিবেশ ও ভূগোল

১. বিকল্পগুলি থেকে ঠিক উত্তরটি নির্বাচন করে লেখো :

নিরক্ষীয়তলে অবস্থিত বিষুবরেখার অক্ষাংশ হলো-

(ক) ৯০°

(খ) ৬০°

(গ) ০°

(ঘ) ৩০°

১.২ ঠিক জোড়াটি নির্বাচন করো –

ক) ভঙ্গিল পর্বত – ব্যারেন

খ) স্তূপ পর্বত – হিমালয়

গ) আগ্নেয় পর্বত – সাতপুরা

ঘ) ক্ষয়জাত পর্বত – আরাবল্লী

১.৩ শিলামধ্যস্থ খনিজের সঙ্গে অক্সিজেনের রাসায়নিক বিক্রিয়ায় যে আবহবিকার সংঘটিত হয় তা হলো –

ক) অঙ্গারযোজন

খ) আর্দ্র-বিশ্লেষণ

গ) জলযোজন

ঘ) জারণ

১.৪ উত্তরবঙ্গের নদীগুলির একটি অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো –

ক) নদীগুলি খরস্রোতা নয়

খ) বরফগলা জলে পুষ্ট

গ) নদীগুলির অসংখ্য শাখানদী

ঘ) অধিকাংশ নদী পশ্চিমবাহিনী

উত্তর: খ) বরফগলা জলে পুষ্ট

2. স্তম্ভ মেলানো :

ক’ স্তম্ভখ’ স্তম্ভ
২.১ ক্ষুদ্রকণা বিশরণi) ভারতীয় প্রমাণ সময়
২.২ কানাডাii) উষ্ণ মরু অঞ্চল
২.৩ এলাহাবাদiii) রাঢ় অঞ্চল
২.৪ বীরভূমiv) মহাদেশীয় শীল্ড মালভূমি

৩. সংক্ষিপ্ত উত্তর দাও :

৩.১ কী কারণে কালবৈশাখী হয়?

৩.২ আবহবিকারের দুটি ফলাফল উল্লেখ করো।

৪. নীচের প্রশ্নটির উত্তর দাও :

৪.১ স্তূপ পর্বতের তিনটি বৈশিষ্ট্য লেখো।

৫. নীচের প্রশ্নটির উত্তর দাও :

৫.১ ভূজালকের সাহায্যে কীভাবে পৃথিবীপৃষ্ঠের কোনো স্থানের অবস্থান নির্ণয় করা হয়?

Class 9 Geography Model Activity Task Part 7 Answers:

 ভূগোল -নবম শ্রেণি

1/ 1) গ)0ডিগ্রি

    2)  ঘ) ক্ষয়জাত পর্বত -আরাবল্লী

    3) ঘ) জারন

    4) খ)বরফ গলা চলে পুষ্ট

2/1)ক্ষুদ্রকণা বিশরণ-ii) উষ্ণ মরু অঞ্চল

   2) কানাডা-iv) মহাদেশীয় শিল্ড মালভূমি

   3) এলাহাবাদ-i) ভারতীয় প্রমাণ সময়

   4) বীরভূম-iii)রার অঞ্চল

3/1) বাংলাদেশ ও তার দক্ষিণে বঙ্গোপসাগর ও ভারত মহাসাগরের উপর সূর্য খাড়াভাবে কিরণ দেয়। ফলে এ অঞ্চলের বায়ু সকাল থেকে দুপুরের রোদের তাপে হালকা হয়ে উপরের দিকে উঠে যায়। এভাবে বিকেলের দিকে এ অঞ্চলে নিম্নচাপের সৃষ্টি হয় কিন্তু এ সময় দেশের উত্তর ও হিমালয়ের দিকে বায়ুর চাপ বেশি থাকে। তাই উচ্চচাপের উত্তরাঞ্চল থেকে বায়ু প্রবল বেগে দক্ষিণ দিকে নিম্নচাপ অঞ্চলের দিকে ধাবিত হয় ও কালবৈশাখী ঝড় সৃষ্টি হয়।

2) আবহবিকার এর দুটি ফলাফল হল-

  i) মৃত্তিকা সৃষ্টি: আবহবিকার প্রাপ্ত শিলা চূর্ণ বিভিন্ন পর্যায়ের মধ্য দিয়ে মৃত্তিকায় রূপান্তরিত হয়।

  ii)খনিজ সৃষ্টি: আবহবিকার এর প্রভাবে ভারী খনিজ হালকা ও খনিজ পরিণত হয়ে নতুন খনিজের জন্ম দেয়।

4/1) স্তুপ পর্বত এর তিনটি বৈশিষ্ট্য হলো-

   ক) আকৃতি: স্তুপ পর্বত এর উপরিভাগ চ্যাপ্টা বা প্রায় সমতল হয়।

   খ) উচ্চতা: স্তুপ পর্বতের উচ্চতা কম হয়।

   গ) পার্শ্ব তল: স্তুপ পর্বতের পার্শ্বদেশ খাড়া

5/1) প্রকৃত অবস্থান নির্ণয়ের জন্য স্থানটি সাথে পৃথিবীর কেন্দ্র এবং নিরক্ষীয় তল এর উৎপন্ন হওয়া কোন উত্তর অক্ষাংশ এবং পৃথিবীর কেন্দ্র এবং মূল মধ্যরেখার সাথে উৎপন্ন হওয়া কোন তথা দ্রাঘিমার সাহায্য নেওয়া হয়।

                       নিরক্ষীয় রেখা থেকে পৃথিবীর কেন্দ্র পর্যন্ত কল্পিত কোন রেখা নিরক্ষীয় তল এর সাথে পৃথিবীর কেন্দ্রে জিরো ডিগ্রী কোন উৎপন্ন করে। তাই নিরক্ষরেখার অক্ষাংশ জিরো ডিগ্রী। আবার উত্তর মেরু নক্ষত্রের সাথে পৃথিবীর কেন্দ্রে 90 ডিগ্রি কোণ উৎপন্ন করে। তাই উত্তর মেরুর অক্ষাংশ 90 ডিগ্রি। উত্তর অক্ষাংশ পরিমাপের সেক্সটান্ট ও ট্রানজিট থিওডোলাইট যন্ত্র ব্যবহৃত হয়।

হোম পেজে যাওয়ার জন্য এখানে ক্লিক করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *